শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১

সাতকানিয়ায় হাইওয়ে পুলিশ ও ট্রাফিক পুলিশের ট্রাফিক ক্যাম্পেইন

প্রকাশিত : ১০:০৮ অপরাহ্ন শুক্রবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১

শহীদুল ইসলাম বাবর
জনসচেতনতা সৃষ্টির লক্ষে সারা দেশের মত সাতকানিয়া ট্রাফিক পুলিশের উদ্যেগে ট্রাফিক ক্যাম্পেইন পালন করা হয়।৮ সেপ্টেম্বর (শনিবার) সকাল ১০টার দিকে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের কেরানীহাট এলাকায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এ ক্যাম্পেইন এর উদ্বোধন করেন, সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার হাসানুজ্জামান মোল্লা। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন, ট্রাফিক পুলিশ (সদর) এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রেজাউল মাসুদ। এ সময় সাতকানিয়া ট্রাফিক পুলিশের ইন্সপেক্টর (টি আই) মোখলেছুর রহমান, সার্জেন্ট গোলাম হোসেন সবুজ, সাতকানিয়া থানার এস আই হারুন অর রশিদ, জাতীয় শ্রমিকলীগ বান্দরবান জেলার সভাপতি ও কেরানীহাট যানবাহন নিরসন কমিটির সদস্য মো. মুছা কোম্পানী। ট্রাফিক পুলিশকে সহায়তা করেন, সাতকানিয়া সরকারি কলেজ বিএনসিসির সদস্য ও কেরানীহাট যানবাহন মালিক-শ্রমিকরা। এছাড়া সচেতনতা কর্মসূচীর অংশ হিসেবে জনসাধারণের মাঝে লিপলেট বিতরণ করা হয় এবং যাদের গাড়ির কাগজপত্র সঠিক ছিল তাদের ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়। সাতকানিয়া ট্রাফিক পুলিশের ইন্সপেক্টর (টি আই) মোখলেছুর রহমান বলেন, জনগণকে যানবাহন চলাচলের ক্ষেত্রে ট্রাফিক আইন মেনে চলার জন্য এ ট্রাফিক ক্যাম্পেইন এর উদ্বোধন করা হয়েছে। প্রতি শনিবার এ ক্যাম্পেইন চলবে। এ ক্যাম্পেইনে মোট ২০টি যানবাহনকে মামলা দেয়া হয়েছে। এর মধ্যে দুটি সিএনজি চালিত অটো রিক্সা ও দুটি ভটভটি আটক করা হয়। যাদের কাগজপত্র ঠিক ছিল তাদের ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানানো হয়।

দোহাজারী হাইওয়ে পুলিশ: পুলিশ হেড কোয়ার্টারের নির্দেশনা অনুযায়ী সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষে সারাদেশের ন্যায় সাতকানিয়ায় দোহাজারী হাইওয়ে পুলিশের উদ্যেগে ট্রাফিক ক্যাম্পেইন পালন করা হয়। ৮ সেপ্টেম্বর (শনিবার) চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের মৌলভীর দোকান এলাকায় সকাল ১০ টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত চলে এ ক্যাম্পেইন। এছাড়া পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত প্রতি শনিবার এ ক্যাম্পেইন চলমান থাকবে বলে জানিয়েছেন হাইওয়ে থানার ওসি। দোহাজারী হাইওয়ে থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান ও এস আই শামসুল আলমের নেতৃত্বে থানার অন্যান্য অফিসার ও পুলিশ ফোর্স এ ক্যাম্পেইনে অংশ নেন। ট্রাফিক ক্যাম্পেইন চলাকালে হেলমেট বিহীন মোটর সাইকেল চালানো, ড্রাইভিং লাইসেন্স না থাকা, একজনের বেশী আরোহী বহন, রোড পারমিট ও ফিটনেসবিহীন ২০টি গাড়ির বিরুদ্ধে মামলা দেয়া হয় এবং আগামীতে ট্রাফিক আইন মেনে মহাসড়কে যানবাহন ও জনসাধারণকে চলাচল করতে বলা হয়। এ ক্যাম্পেইন পরিচালনায় উত্তর সাতকানিয়া জাফর আহমদ চৌধুরী ডিগ্রি কলেজ, জনার কেঁওচিয়া আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী, দোহাজারী বøাড ব্যাংকের সেবকরা, সাতকানিয়া-চন্দনাইশ ক্যাভার্ড ভ্যান শ্রমিক ইউনিয়নের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল আজিজ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রফিক ওমর, দোহাজারী হাইওয়ে থানা কমিউনিটি পুলিশিং এর সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মালেক সহ মালিক-শ্রমিকদের নেতৃবৃন্দরা হাইওয়ে পুলিশকে সহযোগিতা করেন। এ ছাড়া বিতরণ করা হয় জনসচেতনা মূলক লিপলেট এবং ফিটনেস সম্পন্ন গাড়ির চালকদের শুভেচ্ছা জানানো হয় ফুল দিয়ে। এ ব্যাপারে দোহাজারী হাইওয়ে থানার ওসি মো. মিজানুর রহমান বলেন, মামলা দেয়া আমাদের মূল উদ্দেশ্য নয়। একজনকে মামলা দিয়ে অন্যান্যদের সচেতন করাই এ ক্যাম্পেইন এর মূল লক্ষ্য। ফিটনেস ও রোড পারমিট ছাড়া মহাসড়কে গাড়ি না চালানোর জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে অনুরোধ জানান ওসি। পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত এ ক্যাম্পেইন প্রতি শনিবার পরিচালিত হবে।

আরো পড়ুন