মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২

লোহাগাড়ায় আসামীর দায়ের কোপে পুলিশের কব্জি বিচ্ছিন্ন

প্রকাশিত : ১:০১ পূর্বাহ্ন মঙ্গলবার, ১৭ মে ২০২২

 

লোহাগাড়া(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধিঃ

চট্টগ্রামের লোহাগাড়ায় ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে পুলিশ সদস্যের কব্জি কেটে ও আহত করে পালিয়ে গেছে এক আসামী।
তার নাম কবির আহমদ (৩৫)। সে লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের লালারখীলের মৃত আলী হোসেনের পুত্র। এই ঘটনায় এক পুলিশ সদস্যের হাতের কব্জি শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়া ছাড়াও অপর কনস্টেবল এবং মামলার বাদীও আহত হয়েছেন। আহতরা হলেন, মোহাম্মদ জনি (কং নং ১৯৩৯) শাহাদাত হোসেন (কং নং ২০৫২) ও মামলার বাদী আবুল হোসেন কালু।

(১৫ মে) রবিবার সকাল সাড়ে নয়টার সময় লোহাগাড়া উপজেলার পদুয়া ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের লালারখীল এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শিবলী নোমান বিষয়টি নিশ্চিত করে পুলিশটি আহত করে পালিয়ে যাওয়া আসামীকে ধরতে অভিযানে রয়েছে বলে জানিয়েছেন। পুলিশ জানায়,থানার এসআই ভক্ত চন্দ্র দত্তের নেতৃত্বে সঙ্গীয় এ এস আই মজিবুর রহমান কনস্টেবল জনি ও শাহাদাত কে নিয়ে লোহাগড়া থানার মামলা নাম্বার-২৪, তাং-২৪/০৩/২০২২ইং,ধারা-১৪৩/৪৪৭/৩০৭/৩২৫/৩২৩/৩২৪/৪৪৮/৩৮০/৪২৭/৫০৬ দঃবিঃ এর এজাহারনামীয় দুই নাম্বার আসামী কবির আহমদকে গ্রেফতার করতে মামলার বাদী আবুল হোসেন কাল কে সাথে নিয়ে লালার খীল এলাকায় যায়। এ সময় আহমদ কবিরকে ধরতে তার বাড়িতে অভিযান চালালে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে সে ধারালো দা নিয়ে পুলিশের উপর হামলা করে।এতে পুলিশ কনস্টেবল মোহাম্মদ জনির বাম হাতের কব্জি হাত থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় এবং কনস্টেবল শাহাদত ও মামলার বাদী আবুল হোসেন কালুও আহত হয়। পরে তাদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হলে সেখানে জনির অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।
লোহাগাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ আতিকুর রহমান জানান, পুলিশকে আহত করে পালিয়ে যাওয়া আসামি আসামি কবির আহমদকে গ্রেপ্তারের তৎপরতা চলছে। এব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

আরো পড়ুন